শৈলেশ্বরী মৈত্রী কল্যাণ বৌদ্ধ বিহারে ৫ম তম কঠিন চীবর দান উদযাপিত

সুপ্রিয় চাকমা শুভ, রাঙামাটি:

রাঙামাটি জেলা সদরের নানিয়াচর উপজেলার পানছড়ি মুখ এলাকায় ধর্মীয় ভাব মর্যাদায় শৈলেশ্বরী মৈত্রী কল্যাণ বৌদ্ধ বিহারে ৫ম তম দানোত্তম কঠিন চীবর দান উদযাপিত হয়েছে। পাবর্ত্য অঞ্চলের অন্যান্য বৌদ্ধ বিহারের মধ্যে শৈলেশ্বরী মৈত্রী কল্যাণ বৌদ্ধ বিহার অত্যান্ত দুর্গম এলাকা স্বত্তেও শত শত পূণ্যার্থী ও ভিক্ষু সংঘের পদচারণায় মুখরিত হয়ে উঠেছে বিহার প্রাঙ্গন। ২রা নভেম্বর সকাল ৭ ঘটিকায় সময়ে বুদ্ধ পতাকা উত্তোলন ও লিখন চাকমার ১ম ও ২য় পর্ব অনুষ্ঠান সঞ্চালনার মধ্যে দিয়ে সংগীত শিল্পী লক্ষী দেবী চাকমা ও সুবেশ চাকমা উদ্বোধনী সংগীত পরিবেশনে শুরু করা হয় মহাপূণ্যানুষ্ঠান। মাসব্যাপী কঠিন চীবর দান অনুষ্ঠান মূলত বৌদ্ধ ভিক্ষুদেরকে ত্রি-চীবর নামে বিশেষ পোশাক দান করা হয়ে থাকে।তারই ধারাবহিকতায় শৈলেশ্বরী মৈত্রী কল্যাণ বৌদ্ধ বিহারে ৫তম দানোত্তম কঠিন চীবর দান উদযাপিত হয়।

তুলা কেটে, সুতা বানিয়ে, রং করে তৈরী হওয়া সেই বিশাখা কর্তৃক প্রবর্তিত কঠিন চীবর টি ভিক্ষু সংঘকে প্রদান ও পঞ্চশীল প্রার্থনা করেন বিহার পরিচালনা কমিটির সভাপতি অনিল বরণ চাকমা।
অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন নানিয়াচর উপজেলার ৩নং ওয়ার্ডের চেয়ারম্যান প্রমোদ খীসা।
অনুষ্ঠানে বাংলাদেশরে সকল সম্প্রদায় ও বিশ্ব জাতির মঙ্গল ও অতীতে দেব মানুষের মুক্তির কামনায় বুদ্ধ মূর্তি দান, সীবলী পূজা, কঠিন চীবর উৎসর্গ, সংঘ দান, অষ্ঠপরিষ্কার দান কল্পতরু দান, হাজার প্রদীপ দান, পিন্ডুদান সহ নানা বিধ দান অনুষ্ঠিত হয়।
বৌদ্ধ জাতি তথা সমগ্র বিশ্বের মানব জাতির কল্যাণে অমৃতময় বুদ্ধের বাণী প্রকান করেন ফুরমোন সাধনাতীর্থ আন্তর্জাতিক বনধ্যান কেন্দ্রের অধ্যক্ষ শ্রীমৎ ভৃগু মহাস্থবির, নানিয়াচর রতœাঙ্কুর বনবিহারের অধ্যক্ষ শ্রীমৎ বিশুদ্ধানন্দ মহাস্থবির,করুণা র্বধন মহাস্থবির ও রাঙামাটি রাজবন বিহারের সুমন মহাস্থবির প্রমূখ।

সামাজিক মাধ্যম ফেইসবুকে থেকে এখানে প্রকাশিত লেখা, মন্তব‍্য, ছবি, অডিও, ভিডিও বা যাবতীয় কার্যকলাপের সম্পূর্ণ দায় শুধুমাত্র সংশ্লিষ্ট প্রকাশকারীর...

Ads

Recommended For You

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

error: Content is protected !!