চীনে হাজার বছরের পুরনো বৌদ্ধ মন্দিরের সন্ধান

চীনের দক্ষিণ-পশ্চিম অঞ্চলের সিচুয়ান প্রদেশে হাজার বছরের পুরানো মন্দিরের সন্ধান পেয়েছেন প্রত্নতাত্ত্বিকরা। ফুগান মন্দির নামে পরিচিত এ মন্দিরটি সম্পর্কে জানা যায়, পূর্ব জিন সাম্রাজ্য (৩১৭-৪২০) থেকে দক্ষিণ সং সাম্রাজ্য (১১২৭-১২৭৯) পর্যন্ত এটির অস্তিত্ব ছিল।

৩৭.২ মিটার লম্বা এ মন্দিরটির কথা তাং সাম্রাজ্যের (৬১৮-৯০৭) বিখ্যাত সন্ন্যাসী দাওজুয়ান তার লিপিতে উল্লেখ করেছিলেন বলে জানা গেছে। এ ছাড়া মন্দিরের মাহাত্ম্য সম্পর্কে নিজের কবিতা লিখেছেন তাং সাম্রাজ্যের বিশিষ্ট কবি লিউ যুসি। মন্দিরটি তাং ও সং সাম্রাজ্যের পর যুদ্ধের কারণে ভগ্নস্তূপে পরিণত হয় বলেও জানা গেছে।

 

এদিকে, মন্দিরের আশে-পাশে খনন কাজ চালিয়ে বৌদ্ধিক লিপিতে লেখা এক হাজারেরও বেশি ফলক এবং পাঁচ শতাধিক বেশি পাথর পাওয়া গেছে, যা মন্দিরটি সম্পর্কে আরও বিস্তারিত ইতিহাস তুলে ধরবে বলে জানিয়েছেন প্রত্নতাত্ত্বিকরা। এ ছাড়া খননকার্যের সময় ৮০টি প্রাচীন কবরস্থানের সন্ধান পাওয়া গেছে। প্রত্নতাত্ত্বিকরা মনে করছেন, কবরগুলো ১৬০০-২৫৬ খ্রিস্ট পূর্বাব্দের শাং ও ঝাউ সাম্রাজ্যের রাজপরিবারের সদস্যদের।

মন্দিরটির নামকরণ সম্পর্কে জনশ্রুতি রয়েছে, খরার কবল থেকে উদ্ধার পেতে এই মন্দিরে এক সন্ন্যাসী প্রার্থনায় বসেছিলেন। বৃষ্টি নামিয়ে স্বর্গের ঈশ্বর তার ডাকে সাড়া দিয়েছিলেন। সেই থেকে এ মন্দিরের নাম হয় ‘ফুগান’। যার অর্থ, ‘আশীর্বাদ পাওয়া’।

ইতোমধ্যে মন্দিরের একটি অংশ পর্যটকদের জন্য খুলে দেয়া হয়েছে। স্থানীয় সরকার আশা করা করছে, চলতি বছরের মধ্যে মন্দিরটির সম্পূর্ণ সংস্কার কাজ সম্পন্ন করে পর্যটকদের জন্য পুরোপুরি উন্মুক্ত করে দেওয়া হবে।

সামাজিক মাধ্যম ফেইসবুকে থেকে এখানে প্রকাশিত লেখা, মন্তব‍্য, ছবি, অডিও, ভিডিও বা যাবতীয় কার্যকলাপের সম্পূর্ণ দায় শুধুমাত্র সংশ্লিষ্ট প্রকাশকারীর...

Ads

Recommended For You

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

error: Content is protected !!